প্রবাসীদের জাতীয় পরিচয়পত্র পেতে পাসপোর্ট সব নয়: ইসি

0

বিয়ানীবাজার ভিউ২৪ ডটকম, ০৬ জুন ২০১৮,

প্রবাসী বাংলাদেশি নাগরিকদের জাতীয় পরিচয়পত্র (এনআইডি) দেওয়ার উদ্যোগ গ্রহণ করেছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। প্রবাসীদের এনআইডি পেতে পাসপোর্টধারীরা সুবিধা পাবেন। তবে এটি পেতে পাসপোর্টই সব নয়, এরসংগে প্রয়োজনীয় ডকুমেন্ট দিতে হবে। আর এ কার্যক্রম আগামী জুলাই মাস থেকে শুরু করার পরিকল্পনা রয়েছে বলে জানিয়েছেন জাতীয় পরিচয় নিবন্ধন অনুবিভাগের মহাপরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মোহাম্মদ সাইদুল ইসলাম।

তিনি বলেন, প্রবাসীরা যেহেতু স্বল্পসময়ের জন্য দেশে আসেন। তাই তাঁদের জাতীয় পরিচয়পত্র প্রাপ্তি এবং ব্যবহারে যেনো ক্ষতিগ্রস্ত না হয়। সেজন্য আমরা দেশে এবং বিদেশে সব জায়গায় ব্যবস্থা নেয়ার উদ্যোগ গ্রহণ করছি। তারই অংশ হিসেবে দেশের প্রতিটি উপজেলা, জেলা এবং আঞ্চলিক পর্যায়ে আমরা চিঠি দিয়েছি প্রবাসীরা যেনো কোনো রকম হয়রানি ছাড়া, বিলম্ব ছাড়া তাঁদের কাজগুলো করতে পারেন।

তিনি আরো বলেন, কোন কোন দেশে জাতীয় পরিচয়পত্র দেওয়ার পাইলট প্রজেক্ট হিসেবে ধরা হবে তাঁর প্রস্তুতিমূলক কাজ চলছে। এ জন্য আমাদের বিভিন্ন টিম গঠন করছি। প্রাথমিক পর্যায়ে আমরা একটি হাইলেভেল টিম যাবো। সেটার জন্য মধ্যপ্রাচ্যের দুয়েকটি দেশে যাওয়ার পরিকল্পনা করছি। কমিশনের অনুমতি সাপেক্ষ এগুলো পরিচালিত করবো।

সেখানে কি ধরনের সার্ভার স্থাপন করতে হবে, সেই সার্ভারের সংগে মূল সার্ভারকে কিভাবে যোগাযোগ করা হবে, ডেটাটা এখান থেকে কিভাবে সেন্ট করবো এবং সেই ডেটার সংগে আমাদের উপজেলা পর্যায়ে কিভাবে সংযোগ করা হবে, উপজেলা পর্যায়ে যে ভেরিফিকেশন সেই ভেরিফিকিশনগুলো আমরা কিভাবে করবো এবং তারপরে ফাইনালি অ্যাফিস ম্যাচিংয়ের মাধ্যমে নাগরিককে সঠিকভাবে চিহ্নিত করে তাঁর এনআইডিটা প্রিন্ট করে প্রবাসে সংশ্লিষ্ট দূতাবাসের মাধ্যমে কার্ডগুলো পৌঁছে দেবো। আমাদের এই প্রস্তুতিমূলক কাজগুলো চলছে বলেন জানান ব্রিগেডিয়ার জেনারেল সাইদুল ইসলাম।

প্রাথমিকভাবে পরীক্ষমূলকভাবে কয়টি দেশে এ কার্যক্রম চালু করা হবে জানতে চাইলে তিনি বলেন, প্রাথমিকভাবে মধ্যপ্রাচ্যের দুয়েকটি দেশে শুরু করবো। যাতে করে সেখান থেকে কি কি সমস্যা হচ্ছে, সেগুলো কিভাবে সমাধান করা যায়, সেই অভিজ্ঞতা অর্জন করেই তারপর ব্যাপকভাবে আমরা শুরু করবো।

এ ক্ষেত্রে পাসপোর্টটা কতটুকু গুরুত্ব পাবে জানতে চাইলে তিনি বলেন, পাসপোর্টতো অবশ্যই গুরুত্ব পাবে। যাঁরা প্রবাসী তাঁরা পাসপোর্ট ব্যবহার করছে। কিন্তু এই পাসপোর্টই কিন্তু সবকিছু না। তিনি বলেন, বাংলাদেশি পাসপোর্ট যেকোনোভাবে সংগ্রহ করে বিদেশে বসবাস করছে অনেক রোহিঙ্গা। সুতরাং একজন পাসপোর্ট দিলেই যে সে বাংলাদেশের নাগরিক সেটা নির্বাচন কমিশনের পক্ষে যাঁচাই করা সম্ভব হবে না। কারো পাসপোর্ট থাকলে সে বাড়তি সুবিধা পাবে। তবে তাঁর স্থায়ী ও অস্থায়ী ঠিকানা জানাতে হবে। সেই ঠিকানা তাঁকে শণাক্তকারীর এনআইডি নম্বর দিতে হবে।

কবে নাগাদ পরীক্ষমূলক কার্যক্রম শুরু করতে চাচ্ছেন জানতে চাইলে তিনি বলেন, এটা বলা কঠিন। এখন জাতীয় পরিচয় নিবন্ধন অনুবিভাগ প্রস্তুতি নিচ্ছে। কোন টিমগুলো আমরা কিভাবে পাঠাবো। জুলাই মাস থেকে আমরা ‍এ কার্যক্রম শুরু করতে পারবো। তবে কমিশন এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত দেবে বলেও জানান ব্রিগেডিয়ার জেনারেল সাইদুল ইসলাম ।

Share.

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.