প্রবাস
Trending

দক্ষিন আফ্রিকায় বাংলাদেশী খুন || খুনি সন্দেহে সিলেটের দুই যুবক গ্রেফতার






জীবিকার টানে বাংলাদেশ থেকে লাখ লাখ লোক বিদেশে পাড়ি জমায়। দক্ষিণ আফ্রিকায় অসংখ্য বাংলাদেশি প্রবাসির দেখা মিলে । সেখানে বাংলাদেশিরা নানা ধরনের কাজ করে থাকেন জীবনের ঝুকি নিয়ে । বিদেশ থেকে অনেক বাংলাদেশি দেশে ফিরেন লাশ হয়ে । এমনি এক দক্ষিণ আফ্রিকায় প্রবাসী বাংলাদেশি মারা গেলেন ।



নিখোঁজের ৬ দিন পর দক্ষিণ আফ্রিকার পোর্ট এলিজাবেথের জনসন বিলি নামক এলাকা থেকে সাইদুল ইসলাম নামে এক প্রবাসী বাংলাদেশীর লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। সাইদুল হত্যার অভিযোগে সালাহ উদ্দিন ও আব্দুল মাজেদ নামে দুইজন বাংলাদেশীকে আটক করেছে দেশটির পুলিশ।



সাইদুল ইসলাম (৩০) দক্ষিণ আফ্রিকা প্রবাসী বাংলাদেশী ব্যবসায়ী।থাকতেন নর্দাণ ক্যাপের ডিয়ার নামক এলাকায়। তিনি সিলেটের পীরের চক থানার খাদিম পাড়া ইউনিয়নে মৃত শুক্কুর আলীর ছেলে।গত ৫ বছর ধরে সাউথ আফ্রিকায় ব্যবসা করে আসছিলেন, কিন্ত বিধি বাম! ৪ ডিসেম্বরের দোকানের মালামাল কিনতে গিয়ে আর ফিরে আসেনি তিনি এবং ৬ দিন পর গতকাল সোমবার পোর্ট এলিজাবেথের কাছে জনসন বিলি নামক এলাকা থেকে পুলিশ সাইদুলের লাশ উদ্ধার করে।



জানা যায়,পুলিশের হাতে আটক সালাহ উদ্দিন ও আব্দুল মাজেদ একই এলাকার ব্যবসায়ী এবং নিহত সাইদুল ইসলামের বন্ধু। ঘটনার দিন ৪ ডিসেম্বর তারা দুজন মিলে সাইদুলকে কম দামে সিগারেট কিনে দেওয়ার কথা বলে নিয়ে যায়, দোকান থেকে প্রায় ৩শ কিলোমিটার দূরে ভিক্টোরিয়া ওয়েষ্ট নামক শহরে।

এই সময় সাইদুল সিগারেট কেনার জন্য সাথে নিয়ে যায় ২ লাখ ৫৮ হাজার রেন্ড যা বাংলাদেশী টাকায় আনুমানিক ১৫ লাখ।পরে আর খোঁজ মেলেনি সাইদুলের।গ্রেপ্তারকৃত দুই বাংলাদেশীর বাড়ি সিলেটের গোপালগঞ্জ থানায়।



এ ঘটনার বিষয়ে দক্ষিণ আফ্রিকা প্রবাসী জন সিদ্দিকী বলেন, এখানে বাঙালিরা একে অপরের সাথে সম্পর্ক এতোটাই খারাপ যে, প্রবাসে বাংলাদেশীদের সম্পর্কে নেতিবাচক ধারণা তৈরী হচ্ছে , মানুষ কতটা জগন্য হলে? অপহরণ করে নিজের দেশের মানুষকে হত্যা করে! এ ঘটনার কঠোর বিচার চাই ।

















Related Articles

Close