সিলেট

ডেঙ্গুর কাছে হার মানল সিলেটের কিশোরী







অবশেষে ডেঙ্গুরকাছে হার মেনে চিরনিদ্রায় ভিকারুন্নেছা স্কুল অ্যান্ড কলেজের অষ্টম শ্রেণির শিক্ষার্থী অস্মিতা। টানা ছয়দিন লাইফ সাপোর্টে থাকার পর বুধবার সকাল ৭টায় ঢাকা মিলেনিয়াম হাসপাতালে শেষ নিশ্বা’স ত্যা’গ করে অস্মিতা।



অস্মিতা সিলেটের বিশ্বনাথ উপজেলার অলংকারী ইউনিয়নের কামালপুর গ্রামের বিশিষ্ট কবি, ছড়াকার ও সংগঠক হেনা নুরজাহানের মেয়ে। তার বাবা ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আশুগঞ্জ পাওয়ার স্টেশন কোম্পানি লিমিটেডের এমআইএস অ্যান্ড আইসিটির ব্যবস্থাপক প্রকৌশলী আমানত মাওলা টিপু। অস্মিতার পৈতৃক বাসা ঢাকার আজিমপুরে।



সম্প্রতি সে, তার বাবা-মা ও একমাত্র ছোটবোন ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়। তাদেরকে ঢাকা ল্যাবএইড হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে অবস্থা গুরুতর হলে অস্মিতাকে নিয়ে যাওয়া হয় ঢাকা মিলেনিয়াম হাসপাতালে। সেখানে ছয়দিন লাইফ সাপোর্টে ছিল সে।



অস্মিতার মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করে তার মামা বিশ্বনাথের কামালপুর গ্রামের হিমেল আহমেদ বলেন, ‘ঢাকার আজিমপুর ও ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আশুগঞ্জে দু’দফা জানাজা শেষে অস্মিতার লা’শ সিলেটে নিয়ে আসা হবে৷ এখানে জানাজা শেষে আপার (হেনা নুরজাহান) ইচ্ছা অনুযায়ী হজরত শাহজালাল রহ. দরগাহ কবরস্থানে তাকে দাফন করা হবে। তবে তার লা’শ বিশ্বনাথে নিয়ে আসা হবে না।’














Related Articles

Close