বিয়ানীবাজার

বিয়ানীবাজারে বোরকা পরে যা’বজ্জীবন সা’জাপ্রাপ্ত আ’সামি গ্রে’প্তার করলো পু’লিশ







বোরকা পরে নারী সেজে যা’বজ্জীবন সা’জাপ্রাপ্ত এক প’লাতক আ’সামিকে ২০ বোতল অ’ফিসার্স চয়ে’স ম’দসহ গ্রে’প্তার করেছে সিলেট জেলা পু’লিশের মা’দকবিরোধী সেল। গ্রে’প্তারকৃত ব্যক্তির নাম আব্দুস সত্তার ওরফে কটাই মিয়া (৪৫)। সে বিয়ানীবাজার উপজেলার দত্তপাড়া এলাকার সাজ্জাদ আলীর ছেলে।



মঙ্গলবার (৩ সেপ্টেম্বর) বেলা আড়াইটার দিকে বিয়ানীবাজার উপজেলার দত্তপাড়া গ্রাম থেকে তাকে গ্রে’প্তার করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন সিলেট জেলা পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (গণমাধ্যম) মো. আমিনুল ইসলাম।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গ্রে’প্তার আব্দুস সত্তার ওরফে কটাই মিয়া ১৯৯৫ সালের একটি মা’মলায় যা’বজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আসামি। কিন্তু সে দীর্ঘদিন থেকেই প’লাতক।



এমনকি সে তার পরিচয় গো’পন রেখে ছ’দ্ম নাম-ঠিকানা ব্যবহার করে মা’দক ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে। গত ২৫ আগস্ট বিয়ানীবাজার থানা পু’লিশের মা’দক বিরোধী সেলের একটি দল তার বাড়িতে অভিযান চালিয়েও তাকে গ্রে’প্তার করতে পারেনি। এসময় তার বাড়ি থেকে ৫০ বোতল ভারতীয় অ’ফিসার্স চ’য়েস ম’দ উ’দ্ধার করে।



অবশেষে মঙ্গলবার (৩ সেপ্টেম্বর) দুপুরে সিলেট জেলা পু’লিশের মা’দকবিরোধী সেলের অফিসার্স ইনচা’র্জ সজল কোমার কানুর নেতৃত্বে একদল পুলিশ বোরকা পরে নারী সেজে তার বাড়িতে অ’ভিযান চালিয়ে তাকে গ্রে’প্তার করে। এসময় তার বাড়ি থেকে ২০ বোতল ভারতীয় অ’ফিসার্স চ’য়েস ম’দ উদ্ধার করা হয়।

গ্রে’প্তার ব্যক্তিকে আ’দালতে সোপর্দ করা হবে বলে জানিয়েছেন সিলেট জেলা পু’লিশের অতিরিক্ত পু’লিশ সুপার (গণমাধ্যম) মো. আমিনুল ইসলাম।














Related Articles

Close