খেলাধুলাপ্রবাস

সিলেটি হামজা এখন ইংল্যান্ড জাতীয় ফুটবল দলে







ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের ফুটবল ক্লাব লেস্টারসিটিতে খেলেন বাংলাদেশের হবিগঞ্জের হামজা চৌধুরী। তার মা বাংলাদেশি হলেও বাবা গ্রানাডিয়ান। বাংলাদেশে যারা ইউরোপিয়ান ফুটবল নিয়ে খোঁজখবর রাখেন তারা হামজা চৌধুরীর সঙ্গে আগে থেকেই পরিচিত। খবর বিবিসির।

লেস্টারসিটির যুব দল থেকে উঠে আসা এই মিডফিল্ডার সম্প্রতি মূল দলে থিতু হয়েছেন। চলতি মৌসুমে নিয়মিত শুরুর একাদশে জায়গা পাচ্ছেন হামজা।



দক্ষিণ এশিয়া বংশোদ্ভূত দুজন ফুটবলার এখন ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে খেলছেন। একজন লেস্টারসিটির হামজা, অন্যজন নেইল টেইলর, যিনি অ্যাস্টনভিলার হয়ে খেলছেন।

হামজা তার উত্থান নিয়ে একটা কথা বেশ কৃতজ্ঞতার সুরে বলেছেন, সেটি হলো- ব্রিটিশ-এশিয়ান কমিউনিটিতে যারা ফুটবল ভালোবাসেন তারা হামজাকে সবসময় সমর্থন করেছেন।



ইংলিশ লিগগুলোতে হাতেগোনা কয়েকজন এশিয়ান ফুটবলার থাকা সত্ত্বেও এই সমর্থন হামজাকে অনুপ্রাণিত করে। হামজা তার এই ক্যারিয়ারের পেছনে তার বাংলাদেশি মা রাফিয়া, তার সৎবাবা মুরশিদ এবং তার চাচা ফারুকের ত্যাগের কথা স্বীকার করেন।

তাদের ত্যাগের প্রতিদান হামজা দিয়েছেন ২০১৭ সালে, যখন তিনি প্রথমবারের মতো লেস্টারসিটির হয়ে মাঠে নামেন। তৎকালীন ম্যানেজার ক্রেইগ শেকসপিয়ারের অধীনে ইএফএল কাপে বদলি হিসেবে ম্যাচ খেলেন হামজা।



এর পর ম্যানচেস্টার সিটির সঙ্গে ১-১ গোলে ড্র, আর্সেনালের সঙ্গে ৩-০ গোলের জয়ে মিডফিল্ডার হিসেবে যে ভূমিকা রাখেন, তা দলে জায়গা পাকা করতে সাহায্য করে।

চলতি মৌসুমে প্রতি ম্যাচেই মাঠে নামছেন হামজা চৌধুরী। ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে ৮ ম্যাচে ১৪ পয়েন্ট নিয়ে ৩ নম্বরে অবস্থান করছে লেস্টারসিটি।














Related Articles

Close