আন্তর্জাতিকধর্ম

মক্কা গেলেন তরুণী ২০০০ মাইল সাইকেল চালিয়ে ওমরাহ পালনে







বিমান নয়, গাড়ি বা মোটরসাইকেলও নয়, সাইকেল চালিয়ে একাই সৌদি আরবের উদ্দেশে গেলেন তিউনিশিয়ার এক তরুণী।

তার নাম সারা হাবা। ওমরাহ পালনের উদ্দেশ্যে তিউনিশিয়া থেকে সাইকেল চালিয়ে ৩ হাজার ২৮৩ কিলোমিটার (২০৪০ মাইল) পথ পাড়ি দিয়ে সৌদির জেদ্দায় পৌঁছান সারা। এ দুরত্ব অতিক্রম করতে সময় নেন মাত্র ৫৩ দিন।



তিউনিশিয়া নিউমেরিক জানিয়েছে, সারা হাবার বাড়ি আফ্রিকার দেশ তিউনিশিয়ায়। তিনি মিশর ও সুদানের বেশিরভাগ মরুভূমি দিয়ে সাইকেল চালিয়ে ৫৩ দিনে সৌদিতে পৌঁছুতে সক্ষম হন। সাইক্লিংটোমেকা নামক হ্যাশট্যাগ ব্যবহার করে যাত্রার সব তথ্য ও তার অবস্থান বিষয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় আপডেট দিয়েছেন। তিনি তার সাইকেলের নাম রেখেছেন মেরজুগা, যার অর্থ দোয়া ও অনুগ্রহ।



পবিত্র কাবায় পৌঁছে মহান আল্লাহর কাছে শুকরিয়া জানিয়ে নিজের ইনস্টাগ্রামে সারা হাবা লিখেছেন, ‘আল্লাহর ঘর তাওয়াফের উদ্দেশে এ যাত্রা শুরু করি। এজন্য সময় নষ্ট না করতে একটি মুহূর্তের জন্যও থামিনি আমি। আমার ইচ্ছা শক্তিই আমার শরীরকে টেনে নিয়েছে। এত অল্প সময়ে আমি সফর শেষ করতে পারব ভাবতেও পারিনি।’



সারা আরো বলেন, ‘প্রতিদিন টানা ১০ থেকে ১২ ঘণ্টা করে সাইকেল চালিয়েছি। মরুভূমি পাড় হওয়ার সময় আমার সাইকেল নষ্ট হয়ে গিয়েছিল। তবে আলহামদুলিল্লাহ, নিজেই সাইকেলটি ঠিক করতে পেরেছি। রাস্তায় আমাকে অনেক মানুষ খাবার ও পানি দিয়ে এবং নানা সহযোগিতা করেছেন।’

তবে সৌদি আরবে পৌঁছে মক্কা শহরে ঢুকতে পারবেন কি না সে বিষয়ে চিন্তিত ছিলেন সারা।



তিনি বলেন, ‘মক্কা যতোই কাছে আসছিল ততোই চিন্তা বাড়ছিল যে আমাকে পবিত্র নগরীতে প্রবেশ করতে দেবে কি না সে দেশের প্রশাসন। তবে আমি আল্লাহর ঘরের যাত্রী জেনে পথে অগণিত মানুষের দোয়ায় আমি সফল হয়েছি। আমার এ কষ্ট আল্লাহ কবুল করুন এ কামনা করি।’

উল্লেখ্য, সৌদি আরবের আইন অনুযায়ী, ৪৫ বছরের কম বয়সী যে কোনো নারী ওমরাহ বা হজ আদায় করতে মাহরাম সঙ্গে নিয়ে যেতে হয়।













Related Articles

Close