আলোচিত খবরপ্রবাস

তুরস্ক দিয়ে ইউরোপ পাড়ি, বাংলাদেশিসহ ১৩৫ আ’টক


তুরস্কের বাণিজ্যিক রাজধানী ইস্তানবুলে ১৩৫ জন অবৈধ অভিবাসীকে আ’টক করা হয়েছে। আ’টককৃতরা বাংলাদেশ ও পাকিস্তানের নাগরিক বলে জানা গেছে। তবে কোন দেশের কত জন তা প্রকাশ করা হয় নি।

তুর্কি রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থা আনাদোলু এজেন্সি নিরাপত্তা সূত্রের উদ্বৃতি দিয়ে তাদের প্রতিবেদনে জানিয়েছে, বুধবার ( ১২ ফেব্রুয়ারি) ইস্তানবুলের ফাতিহ জেলায় বাংলাদেশ এবং পাকিস্তান থেকে আসা অভিবাসীদের আ’টক করতে সক্ষম হয়। অ’বৈধ অভিবাসন ও মানবপা’চারের বিরু’দ্ধে প্রচেষ্টার অংশ হিসেবে পরিচালিত এক অভিযানে পরিচালনা করে পুলিশের হাতে আ’টক হয়।

আইনি প্রক্রিয়ার জন্য আ’টককৃতদের প্রাদেশিক অভিবাসন দফতরে পাঠানো হয়।

জানা গেছে, তুরস্কের দিয়ে অ’বৈধ পথে ইউেরাপ পাড়ি দিচ্ছেন বাংলাদেশ-পাকিস্তাসহ নানা দেশের মানুষ। সাম্প্রতিক সময়ে তুরস্কের অভিবাসন বিভাগ ও আইন-শৃংখলা বাহিনী অ’বৈধ অভিবাসীদের অ’স্তিত্বের স’ন্ধান এবং মানব পা’চারের বিরু’দ্ধে বড় ধরনের অ’ভিযানে নেমেছে। এমন একটি অ’ভিযানে ধরা পড়ল বাংলাদেশ ও পাকিস্তানের এই নাগরিকরা।

আ’টক ১৩৫ জন ইউরোপ পাড়ি দেওয়ার জন্যই ইস্তানবুল অবস্থান নিয়েছিল বলে প্রাথমিকভাবে নিশ্চিত হওয়া গেছে।

তুরস্কের ডেইলি সাবাহ পত্রিকার প্রতিবেদন বলা হয়, ২০১৯ সালে রেকর্ড সংখ্যক চার লাখ ৫৪ হাজার ৬৬২ অবৈধ অভিবাসী বা অভিবাসন প্রত্যাশীকে আ’টক করে তুরস্ক। এদের মধ্যে প্রায় ৬০ হাজার মানুষকে আ’টক করা হয় ভূমধ্যসাগর পাড়ি দেওয়ার সময়।

এর আগের বছর ২০১৮ সালে দুই লাখ ৬৮ হাজার জনকে আ’টক করা হয়। ২০১৬ ও ২০১৭ সালে আ’টক হয় এক লাখ ৭৫ হাজার করে অবৈধ ‘অভি’বাসী। তার আগের বছর ২০১৫ সালে এ সংখ্যা ছিল এক লাখ ৪৬ হাজার।

এছাড়া মা’নবপা’চারের দা’য়ে তুরস্কে গত পাঁচ বছরে প্রায় ২৮ হাজার জনের বিরু’দ্ধে অ’ভিযোগ আনা হয়েছে।

Related Articles

Close