আন্তর্জাতিক

২০১৮ সালের সেরা মুসলিম ব্যক্তিত্ব মাহাথির ও তামিমি







২০১৮ সালে বিশ্বের প্রভাবশালী মুসলিম ব্যক্তিত্ব হিসেবে মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী মাহাথির মোহাম্মদ ও ফিলিস্তিনি প্রতিরোধ আন্দোলনের প্রতীক হয়ে ওঠা আহেদ তামিমিকে নির্বাচন করা হয়েছে। যুক্তরাজ্য থেকে প্রকাশিত দ্য মুসলিম ৫০০ এর ২০১৯ সালের সংখ্যায় তাদেরকে নির্বাচিত করা হয়। এটি প্রকাশ করে জর্ডানভিত্তিক রয়্যাল ইসলামিক স্ট্র্যাটেজিক স্টাডিজ সেন্টার।



দ্য মুসলিম ৫০০ এর দশম সংখ্যা মাহাথিরকে মালয়েশিয়ার ১৪তম নির্বাচনে জয়ী হওয়ার জন্য প্রশংসা করা হয়েছে। তাকে ‘লাখে একজন’ হিসেবে বর্ণনা করা হয়েছে এই প্রকাশনায়। পূর্ব-এশিয়া অঞ্চলের নেতৃত্বে মালয়েশিয়াকে নিয়ে যাওয়ার জন্য এই আখ্যা দেওয়া হয় তাকে।



সেরা মুসলিম ব্যক্তিত্ব হিসেবে নির্বাচিত হলেও বিশ্বের প্রভাবশালী ৫০০ মুসলিম ব্যক্তির তালিকায় মাহাথিরের অবস্থান ৪৪ নম্বরে। এবারই প্রথম তিনি এই প্রকাশনায় স্থান পেয়েছেন। তালিকায় অন্যদের মধ্যে রয়েছেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়্যেব এরদোয়ান, জর্ডানের বাদশাহ আব্দুল্লাহ, ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদো।

এবার বিশ্বের প্রভাবশালী নারী হিসেবে প্রকাশনাটি নির্বাচন করেছে ১৭ বছরের ফিলিস্তিনি কিশোরী আহেদ তামিমিকে। ২০১৭ সালের ডিসেম্বরে ইসরায়েলবিরোধী সাহসিকতার জন্য আন্তর্জাতিক পরিচিতি ও ফিলিস্তিনি প্রতিরোধ আন্দোলনের প্রতীকে পরিণত হন তিনি।



ডিসেম্বরের মাঝামাঝি ইসরায়েলি দখলদারিত্বের প্রতিবাদ করতে গিয়ে সেনাদের গালে থাপ্পড় মেরে ফিলিস্তিনি প্রতিরোধ আন্দোলনের জীবন্ত প্রতীকে পরিণত হন তামিমি। তাকে ইসরায়েলের কারাগারে নেওয়া হয়।

মার্চে সামরিক আদালতে তার বিরুদ্ধে ঘোষিত হয় জরিমানাসহ আট মাসের কারাদণ্ড। সে হিসেবে ১৯ ডিসেম্বর থেকে কারাগারে থাকা তামিমির মুক্তি পাওয়ার কথা ১৯ আগস্ট। তবে বিশেষ মূল্যায়নে ইসরায়েলের কারা কর্তৃপক্ষ কারও কারা মেয়াদ কমিয়ে আনতে পারেন। সেই প্রক্রিয়ার অংশ হিসেবে গতকাল ২৯ জুলাই রবিবার তাকে মুক্তি দেওয়া হয়।














Related Articles

Close