আন্তর্জাতিক
Trending

কফিলের মিথ্যা মামলা চ্যালেঞ্জ করতে পারবেন প্রবাসীরা







সৌদি আরবে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের মালিকের (কফিল) মিথ্যা মামলা ও অভিযোগের (হুরুব) বিরুদ্ধে চ্যালেঞ্জ করতে পারবেন দেশটির বাংলাদেশি প্রবাসীরা। এই আইনের বাস্তবায়নে প্রবাসী শ্রমিকদের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দেয়ার সুযোগ থাকছে না।

সম্প্রতি হুরুব দিয়ে হাজার হাজার প্রবাসী শ্রমিকের জীবন বিপণ্ন করার অভিযোগ উঠেছে কফিলদের বিরুদ্ধে। সৌদি আরবের শ্রম মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগে প্রবাসী শ্রমিকদের অধিকার নিশ্চিত করতে মিথ্যা হুরুব চ্যালেঞ্জ করে আইন চূড়ান্ত হচ্ছে শিগগিরই।



এর আগে প্রবাসী শ্রমিকের মামলা দিয়ে নানাভাবে হয়রানি করা হয়েছে বলেও একাধিক অভিযোগ এসেছে। কর্মস্থল থেকে শ্রমিক বণ্টনের সময় অনেক মালিক এর সুযোগ নেই। মিথ্যে প্রমাণিত হলে মালিককে অপরাধী হিসেবে গণ্য করে শাস্তির আওতায় আনা হবে।

যা থাকছে আইনে

১. মিথ্যা মামলার শিকার প্রবাসীরা সরাসরি শ্রম মন্ত্রণালয়ে গিয়ে উপযুক্ত প্রমাণ দেখিয়ে মালিকের বিরুদ্ধে চ্যালেঞ্জ করতে পারবেন।

২. অতীতে যারা মিথ্যা হুরুবের শিকার হয়েছেন তারাও মক্তব আমেলে গিয়ে তাদের হুরুবের বিরুদ্ধে চ্যালেঞ্জ করে আপিল করতে পারবেন।



৩. কোনো শ্রমিক যদি মালিকের আচরণে অতিষ্ঠ হয়ে লেবার কোর্টে মামলা দায়ের করেন তাহলে মামলা চলাকালীন শ্রমিককে হুরুব দেবার কোনো অধিকার মালিকের থাকবে না।

৪. ইকামার মেয়াদোত্তীর্ণের পরও কোনো মালিক চাইলে আর শ্রমিকের নামে ‘কাজে অনুপস্থিতির’ অভিযোগ দিতে পারবেন না।

৫. কর্মস্থল থেকে শ্রমিক বিতরণের ফাঁদ হিসেবে মিথ্য হুরুবের সুযোগ একদমই কমে আসবে। মিথ্যা হুরুব প্রমাণিত হলে, মালিককে অপরাধি হিসেবে গণ্য করা হবে।



চাইলে আপনিও রেজিস্ট্রেশন করে অনলাইনেও অভিযোগ দাখিল করতে পারবেন এখানে

প্রতিনিয়তই সৌদি আরবে প্রবাসী বাংলাদেশিদের মিথ্যা মামলা দিয়ে ফাঁসানো হচ্ছে বলে একাধিক অভিযোগ এসেছে। এ ছাড়া সম্প্রতি নুরু নামে বাংলাদেশি পিটিয়ে হত্যাও করা হয়েছে। বেতনের বকেয়া টাকা চাওয়াতে মালিক তাকে শারীরিক নির্যাতন করে হত্যা করে।














Related Articles

Close