প্রবাস

নিরাপত্তাঝুঁকিতে প্রবাসী বাংলাদেশিরা







প্রবাসী বাংলাদেশির জন্য সাউথ আফ্রিকা দিন দিন অনিরাপদ হয়ে যাচ্ছে। সাউথ আফ্রিকায় কমবেশি পৃথিবীর সব দেশের মানুষ ব্যবসা বানিজ্য করে বসবাস করলেও একমাত্র বাংলাদেশিরা এ দেশে নিরাপদ নয়।

এছাড়া চলতি বছরে জানুয়ারি থেকে এ রিপোর্ট লিখা পর্যন্ত মৃত্যু হয়েছে ১০৯ জন বাংলাদেশি নাগরিকের। এছাড়া অপহরণ করে মুক্তিপন আদায়ের ঘটনা প্রায় ঘটে থাকে।এক সপ্তাহের ব্যবধানে লানেসিয়া থেকে ৩ জন বাংলাদেশিকে অপহরণের ঘটনা ঘটে।



প্রতিনিয়ত অপহরণ ও হত্যাকান্ড ঘটে আসলেও অধিকাংশ হত্যাকান্ডকে চোর ডাকাতের গুলিতে নিহত বলে চালিয়ে দেয়া হয়। বাকী হত্যাকান্ডের রহস্য উদঘাটন হয়না।

পুলিশের ভাষ্য অনুযায়ী হত্যাকান্ডের পর পুলিশের পক্ষে একটি ইউ ডি মামলা ছাড়া ভিকটিমের পক্ষে কোন মামলা হয়না। তাই কি কারণে এ হত্যাকান্ডটি সংঘটিত হয়েছে তা পুলিশী তদন্তের বাইরে থেকে যায়।

অনেক সময় দেখা যায় হত্যাকান্ডের শিকার হওয়া ব্যক্তির কোন আত্নীয় স্বজন সাউথ আফ্রিকায় না থাকায় এ হত্যাকান্ড নিয়ে তেমন কেউ আগ্রহ দেখায় না।



অপরদিকে বাংলাদেশি ছাড়া অন্যকোন বিদেশী নাগরিক সাউথ আফ্রিকায় খুনের শিকার হলে ঐ দেশের কমিউনিটি নেতারা বাদী হয়ে সংশ্লিষ্ট থানায় অজ্ঞাত আসামীর নামে মামলা দায়ের করে এবং মামলার চুড়ান্ত রায় না হওয়া পর্যন্ত ঐ মামলার তদারকি করে যায়। এমন কি ঐ দেশের অ্যাম্বাসী পর্যন্ত মামলার তদারকির জন্য নিজস্ব ল’ইয়ার নিয়োগ করে থাকে।

কিন্ত একমাত্র বাংলাদেশি প্রবাসীদের বেলায় সবকিছু উল্টো। যে কোন এলাকায় কোন বাংলাদেশি নাগরিক হত্যাকান্ডের শিকার হলে স্থানীয় বাংলাদেশিরা চাঁদা তুলে লাশটা কোনরকমে দেশে পাঠানোর ব্যবস্থা করে।



এ ক্ষেত্রে আমরা কোনদিন দেখিনি বাংলাদেশ কমিউনিটির কোনো নেতা একটি লাশের তদারকি করতে বা কমিউনিটি বাদী হয়ে মামলা করতে।

বাংলাদেশ প্রশাসন যে কোনো প্রকারেই হোক দক্ষিণ আফ্রিকাস্থ অসহায় প্রবাসী বাংলাদেশির বিষয় নিয়ে দক্ষিণ আফ্রিকার সরকারের সঙ্গে একটি শক্তিধর চুক্তিনামা করা এবং সরকারিভাবে দেশীয় আন্তর্জাতিক ইমপোর্ট এক্সপোর্ট করার জোরালো দাবী জানান দক্ষিণ আফ্রিকাস্থ সকল শ্রেনীর প্রবাসী বাংলাদেশি ও হাইকমিশন।



তাতেই হয়তো দক্ষিণ আফ্রিকাস্থ প্রবাসী বাংলাদেশির শান্তি ফিরিয়ে আসতে পারে। বাংলাদেশ সরকার ব্যতীত এ সমস্যার সমাধান কখনোই সম্ভব নয়। দিনদিন প্রবাসীদের লাশের সংখ্যা বেড়েই চলেছে।














Related Articles

Close