প্রবাস

লিবিয়ায় ২৫০ বাংলাদেশীকে নিরাপদ স্থানে নেয়া হয়েছে







লিবিয়ায় সরকার ও সেনাবাহিনীর মধ্যকার যুদ্ধের কবলে পড়া ২৫০ বাংলাদেশী শ্রমিককে দেশটির রাজধানীর ত্রিপোলির একটি নিরাপদ স্থানে রাখা হয়েছে বলে জানা গেছে।

বাংলাদেশ দূতাবাসের ফার্স্ট সেক্রেটারি আশরাফুল ইসলাম জানিয়েছেন, খবর পেয়ে আমরা লিবিয়ান রেডক্রসের সহযোগিতায় আটকে পড়া এসব বাংলাদেশীকে উদ্ধার করে ত্রিপোলির নিরাপদ স্থানে সরিয়ে নিয়েছি।



তিনি আরো বলেন, এখন পর্যন্ত বাংলাদেশী কোনো শ্রমিকের হাতাহতের ঘটনা তাদের কাছে আসেনি। গত চার এপ্রিল থেকে ফিল্ড মার্শাল খলিফা হাফতারের নেতৃত্বাধীন লিবিয়ান ন্যাশনাল আর্মি দেশটির পশ্চিমাঞ্চল ও জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদ স্বীকৃত জাতীয় সরকারের অধীনে থাকা রাজধানী ত্রিপোলি দখল করতে সামরিক আক্রমণ অপারেশন ফ্লাড অব ডিগনিটি শুরু করেছি।



লিবিয়ার রাজধানী ত্রিপোলির আশপাশে অন্তত চার হাজার বাংলাদেশী রয়েছেন বলে ধারণা করা হচ্ছে। আর সব মিলিয়ে এই দেশটিতে প্রায় ২০ হাজার বাংলাদেশী রয়েছেন।

প্রসঙ্গত, ২০১১ সালে লিবিয়ার নেতা মুয়াম্মার গাদ্দাফিকে ক্ষমতাচ্যুত করে হত্যা করার পর থেকেই সেখানে গৃহযুদ্ধ লেগে আছে। এ দেশটিতে বাংলাদেশ থেকে শ্রমিক নিয়োগ অনুমোদিত নয় তখন থেকেই।

তবে পাচারকারীরা বিভিন্ন উপায় অবলম্বন করে বাংলাদেশীদের পাঠিয়ে থাকে লিবিয়ায়। অনেক সময় এক্ষেত্রে তাদেরকে লিবিয়া হয়ে ভূমধ্যসাগর পাড়ি দিয়ে ইউরোপে পাঠানোর প্রতিশ্রুতি দেয়া হয়।














Related Articles

Close