Beanibazar View24
Beanibazar View24 is an Online News Portal. It brings you the latest news around the world 24 hours a day and It focuses most Beanibazar.

নির্বাচিত হলে তিনি হবেন অস্ট্রেলিয়ার প্রথম বাংলাদেশি নারী কাউন্সিলর


অস্ট্রেলিয়ার জাতীয় সংসদ ও কাউন্সিল নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে এখন বাংলাদেশিরা মূলধারার রাজনীতিতে নিজেদের অবস্থান শক্ত করে নিয়েছেন। ক্ষমতাসীন ও বিরোধী দলের রাজনীতিতে তাদের ভূমিকা এখন অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।

আগামী ডিসেম্বরে হাতে যাচ্ছে নিউ সাউথ ওয়েলস রাজ্যের সিটি কাউন্সিল নির্বাচন। বাংলাদেশি কমিউনিটির প্রিয় মুখ সাজেদা আক্তার সানজিদা ব্যাংক্সটাউন-ক্যান্টারবুরি এলাকার কাউন্সিলর হিসেবে অংশ নিচ্ছেন বলে অনেক দিন ধরেই গুঞ্জল চলছিল। গত ৫ আগস্ট প্রি-ভোটিংয়ে ক্ষমতাসীন লিবারেল পার্টির অধিকাংশ ভোটারের সমর্থন পাওয়ার পর নির্বাচনে তার অংশগ্রহণটি এখন অনেকটাই নিশ্চিত।

লিবারেল পার্টির পাঁচটি ব্রাঞ্চের ১৩৩ জন এবং কেন্দ্রীয় অফিসের ১৭ জনসহ মোট ১৫০ জন সদস্যের মধ্যে ভোট গ্রহণে অংশ নেন ১২১ জন। এর মধ্যে সাজেদা আক্তার ভোট পেয়েছেন ১০৩টি এবং তার প্রতিদ্বন্দ্বী দুই প্রার্থী পেয়েছেন যথাক্রমে ১৪ ভোট ও চার ভোট। এই ভোট গ্রহণ হয় অনলাইনে। চলতি মাসের মধ্যেই সমস্ত প্রি-ভোট শেষ করে চূড়ান্তভাবে লিবারেল পার্টি তাদের প্রার্থীর নাম ঘোষণা করবে।

সাজেদা আক্তার সানজিদা যখন প্রি-সিলেকশনে তার প্রতিদ্বন্দ্বীদের বিপুল ভোটের ব্যবধানে পরাজিত করেছেন তখন থেকেই বাংলাদেশি কমিউনিটির মধ্যে তার নির্বাচনে জয়লাভের ব্যাপারে সবাই আশাবাদী হয়ে উঠেছেন। আগামী ৪ ডিসেম্বর সিটি কাউন্সিল নির্বাচন হবে। সাজেদা আক্তার যদি আগামী কাউন্সিল নির্বাচনে জয়লাভ করেন তাহলে তিনিই হবেন অস্ট্রেলিয়ার প্রথম বাংলাদেশি নারী কাউন্সিলর।

ব্যাংক্সটাউন-ক্যান্টারবুরি সিটি কাউন্সিল নিউ সাউথ ওয়েলস রাজ্যের অন্যতম বৃহত্তর কাউন্সিল। তিন লাখ ৮০ হাজার বাসিন্দার এই কাউন্সিল মোট পাঁচটি ওয়ার্ড নিয়ে গঠিত। সাজেদা আক্তার নির্বাচন করবেন রোজল্যান্ডস ওয়ার্ড থেকে। এই এলাকায় রয়েছে প্রায় ৪৬ হাজার ভোটার। এটি মূলত বিরোধীদল লেবার অধ্যুষিত।

তাই ক্ষমতাসীন দলের প্রার্থী হিসেবে তাকে কঠিন প্রতিদ্বন্দ্বিতার মুখোমুখি হতে হবে। গত কাউন্সিল নির্বাচনে তার স্বামী শাহে জামান টিটু একই আসন থেকে ক্ষমতাসীন দলের প্রার্থী হিসেবে কাউন্সিলর নির্বাচিত হয়েছিলেন। পরবর্তীতে তিনি ব্যক্তিগত কারণে পদত্যাগ করেন। সেই একই আসনে সাজেদা আক্তার নির্বাচন করছেন বলে তার বিজয়টি সহজ হবে বলে কমিউনিটির অনেকেই মনে করছেন।

সাজেদা আক্তার কমিউনিটির সবার কাছে গ্রহণযোগ্য একজন সংগঠক। বেশ কয়েকটি বাংলাদেশি সংগঠনের হয়ে তিনি দীর্ঘদিন ধরে কমিউনিটির জন্য কাজ করে যাচ্ছেন। সংগঠনগুলোর মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলো— উইমেন্স কাউন্সিল, ফাগুন হাওয়া, বাংলাদেশ অস্ট্রেলিয়া ফ্যাশন অ্যাসোসিয়েশন, অস্ট্রেলিয়া বাংলাদেশ বিজনেস কাউন্সিল। তিনি লিবারেল পার্টি লাকেম্বা ব্রাঞ্চের সাধারণ সম্পাদক।

মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করা হলে সাজেদা আক্তার বলেন, আমি যদি দলের চূড়ান্ত মনোনয়ন পাই তাহলে জয়ের ব্যাপারে আমি খুব আশাবাদী। অস্ট্রেলিয়া যেহেতু একটি বহুজাতিক দেশ তাই আমি চেষ্টা করবো সব কমিউনিটির জন্য কাজ করতে। তবে যেহেতু আমি বাংলাদেশ থেকে এসেছি তাই অবশ্যই আমার নিজের কমিউনিটির কথা প্রথমে ভাববো।’
আকিদুল ইসলাম: অস্ট্রেলিয়া প্রবাসী লেখক, সাংবাদিক

You might also like

Comments are closed, but trackbacks and pingbacks are open.