আলোচিত খবরবিয়ানীবাজার

বিয়ানীবাজারে বৃদ্ধকে পেট্রোল ঢেলে পুড়িয়ে হত্যার চেষ্টা, ঢাকায় প্রেরণ








বিয়ানীবাজার উপজেলার লাউতা ইউনিয়নের জলঢুপ এলাকায় এক বৃদ্ধকে পেট্রোল ঢেলে আগুন দিয়ে হত্যার চেষ্টা করেছে অজ্ঞাত দুর্বৃত্তরা। গত শুক্রবার রাত ৮টার দিকে নিজ ঘরের বাইওে বৃদ্ধের শরিওে আগুন ধরিয়ে পুড়িয়ে মারা চেষ্টা করে দুর্বৃত্তরা।



অগ্নিদগ্ধ বৃদ্ধ বিনয়েন্দ ভুষণ চক্রবর্তীর (৬০) অবস্থা আশংকাজনক। উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে ঢাকায় প্রেরণ করা হয়েছে। অজ্ঞাত দুর্বৃত্তের সংখ্যা ২/৩জন বলে পরিবারের সদস্যরা দাবি করছেন। পুলিশের ধারণা পূর্ব শত্রুতার জের ধরে এ ঘটনা ঘটানো হতে পারে।



জানা যায়, শুক্রবার রাত ৮ টার দিকে অজ্ঞাত দুর্বৃত্তরা বিনয়েন্দ ভুষণ চক্রবর্তীর ঘরের দরজায় কড়া নাড়ে এবং নাম ধরে ডাক দিয়ে বেরিয়ে আসার জন্য অনুরোধ করে। কোন প্রতিবেশি তাঁর খোজে বাড়িতে এসেছে মনে করে তিনি দরজা খুলেন। কোন কিছু বুঝার আগেই তার শরীরে পেট্রোল ঢেলে দিয়াশলাই দিয়ে আগুন ধরিয়ে দেয় দুর্বৃত্তরা।



তাঁর চিৎকার শোনে পরিবারের সদস্য ও প্রতিবেশিরা এগিয়ে আসলে দুবৃত্তরা পালিয়ে যায়। বিনয়েন্দ ভুষণ চক্রবর্তীকে আহত অবস্থায় উদ্ধার করে প্রথমে বিয়ানীবাজার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এবং পরে সিলেট ওসমানি মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তার মুখ ও শরীরের সামনের অর্ধেক অংশ আগুনে জ্বলসে গেছে।



আহতবৃদ্ধের ছেলে বসুদেব চক্রবর্তী জানান, শুক্রবার রাতে কে বা কারা আমার বাবাকে ডেকে ঘর থেকে বের কওে এনে শরীরে পেট্রোল ঢেলে দেয় এবং সাথে থাকা আরেকজন দিয়াশলাই ছুড়ে মারে। এতে তার শরীরে মুখে আগুন ধরে যায়। তিনি বলেন, শারিরক অবস্থা খুবই খারাপ। ডাক্তারের পরামর্শে বাবাকে ঢাকা মেডিকেলের বার্ণ ইউনিটে ভর্তি করার জন্য ঢাকা নিয়ে যাচ্ছি।



বিয়ানীবাজার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) অবনী শংকর কর বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। বিষয়টি স্পর্শকাতর। আমাদের ধারণা পূর্ব শত্রুতার জের ধরে পরিকল্পনা করেই তার উপর পেট্রোল ঢেলে আগুন দেয়া হয়েছে। আমরা তদন্ত করছি। দুর্বৃত্তদের সনাক্তের চেষ্টা চলছে। তিনি বলেন, এ ঘটনায় থানায় কোন অভিযোগ দায়ের করা হয়নি।














Related Articles

Close